করোনা আতংকে ডুয়ার্সের বাজারে জন সমাগম কম হতাশ ব্যবসায়ীরা

0
61

মালবাজার: করোনা ভাইরাসের আতংকে ডুয়ার্সের হাটে বাজারে জন সমাগম কম। হতাশ ছোট বড় ব্যবসায়ীরা। করোনাভাইরাস সারা পৃথিবীতে মহামারীর আকার নিয়েছে। বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম ও সোশ্যাল মাধ্যমে সেই খবর বয়ে আসছে। সেই খবর পেয়ে অনেকের মধ্যে আতংক ছড়িয়েছে। ডুয়ার্সের হাটেবাজারে রাস্তায় এখন সবার মুখে মাস্ক। দোকানে দোকানে মাস্ক ও স্যানেটাইজার কেনার ভীড়।

মাস্ক কেনার ভীড় থাকলেও অন্যান্য দোকানে ভীড় নাই। বৃহস্পতিবার চালসার মঙ্গলবাড়িতে ডুয়ার্সের অন্যতম বিরাট হাট বসে। এদিন সকাল ১১টা নাগাদ হাটে গিয়ে দেখা গেল অন্যান্য দিনের তুলনায় লোক সমাগম কম। ডুয়ার্সের এই হাটে শুধু আশেপাশের চাবাগান নয়, কালিম্পং জেলার গরুবাথান ব্লকের ঝালং, জলঢাকা এলাকার বহু মানুষ এই হাটে সাপ্তাহিক কেনাকাটার জন্য আসে।

এদিন পাহাড় কিম্বা চা বাগানের লোকজন সেরকম দেখা যায় নি। এক সবজি বিক্রেতা জানালেন, সকাল থেকে মাত্র ১৩৫ টাকার বিক্রি করেছি। একইরকম জবাব পাওয়া গেছে খাদ্য সামগ্রীর দোকানীদের কাছ থেকে। সবচেয়ে হতাশ মাংস বিক্রেতারা। দুপুরের পর খানিকটা সমাগম বাড়ে।

বুধবার ছিল নাগরাকাটা ব্লকের শুলকাপাড়া হাট। সেখানেও লোক সমাগম নগন্য ছিল। এমনিতেই স্কুল কলেজ পার্ক সিনেমা হল বন্ধ থাকায় মানুষের আসাযাওয়া কম দেখা গেছে। ইতিমধ্যেই রবিবারের ওদলাবাড়ি হাট বসবে না বলে ঘোষণা হয়েছে। করোনাভাইরাসের আতংক প্রভাব ফেলেছে ডুয়ার্সের হাটেবাজারে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here