ঠাকুর রায় সাহেব পঞ্চানন বর্মার ১৫৪তম আবির্ভাব দিবস উপলক্ষ্যে এবং অন্যান্য রীতিমতো উৎসব মুখর এলাকা

0
61

ইসলামপুর: ঠাকুর রায় সাহেব পঞ্চানন বর্মার ১৫৪তম আবির্ভাব দিবস উপলক্ষ্যে রীতিমতো উৎসব মুখর এলাকা। সেই সঙ্গে  ছিল সনাতন ধর্মের কুল গুরু ও কুল শিষ্য মহা মিলন উৎসব।  ঠাকুর রায় সাহেব পঞ্চানন বর্মার ১৫৪তম আবির্ভাব দিবস উপলক্ষ্যে ১৮তম বার্ষিক মহা মিলন উৎসব সাড়ম্বরে উদযাপিত হল চোপড়ার হাপতিয়া গছ অঞ্চলের ডাঙ্গীবাড়ি ধাম ডাঙ্গী মাঠে।

এই অনুষ্ঠানে উত্তর দিনাজপুর ও দার্জিলিং জেলার সমস্ত কুল গুরু ও কূল শিষ্যগণ এই অনুষ্ঠানে যোগদান করেন। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, রাজবংশী ভাষায় গীতা অনুবাদক নগেন্দ্র নাথ রায়। অনুষ্ঠানে ঠাকুর পঞ্চানন বর্মার প্রতিকৃতিতে মাল্যদান, পুষ্পার্ঘ নিবেদন ও প্রদীপ প্রজ্জ্বলন করে অনুষ্ঠানের সুভারম্ভ হয়। বৃহস্পতিবার শোভাযাত্রা অধিবাস কীর্তন পরিবেশন ও রাত্রে ছিল সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় দিন পতাকা উত্তোলন,গুরু পূজা, শান্তি যজ্ঞ ও গীতা পাঠ করা হয়। রাজবংশী ভাষার  গীতা  পাঠ করেন ইন্দ্র দেব বর্মন।  এছাড়াও বিভিন্ন বক্তা কূল গুরু বিষয়ক আলোচনায় অংশ গ্ৰহণ করেন। অনুষ্ঠানে উত্তরবঙ্গ ও দক্ষিণবঙ্গের শিল্পীরা সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ নেন। এই অনুষ্ঠানের আহ্বায়ক কূল গুরুদের মধ্যে ছিল বিপিন কান্ত অধিকারী, ঈশ্বর চন্দ্র অধিকারী, অজয় অধিকারী,মিঠালাল অধিকারী, রবি অধিকারী সহ আরও অন্যান্যরা।

এই অনুষ্ঠানে কয়েক হাজার ভক্তের সমাগম হয়। অনুষ্ঠানটি শনিবার সকালে শেষ হবে বলে অনুষ্ঠানের সম্পাদক কিরণ সিংহ ও সভাপতি বিনয় রায় জানান। এলাকার বাসিন্দাদের উপচে পড়া ভিড় অনুষ্ঠানকে বাড়তি অক্সিজেন এনে দিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here