বিশ্বমানের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ভারতের হরিয়ানার ‘ওএম গ্লোবাল ইউনিভার্সিটি’

0
234

হাবিবুর রহমান, ঢাকা: জাতির বিকাশ ও উন্নয়নে শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। মণিষীরা বলেছেন, জ্ঞান অর্জনে সুদুর চিনদেশে যাও। কিন্তু বর্তমান তথ্যপ্রযুক্তিনির্ভর সময়কে সঙ্গী করে আমরা সহেজেই পার্শ্ববর্তীদেশে শিক্ষাবান্ধব পরিবেশে বিশ্বমানের উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করে জাতিগঠনে নিজেকে সম্পৃক্ত করতে পারি। আর এজন্য দু’বাহু বাড়িয়ে রয়েছে ভারতের হরিয়ানার অন্যতম একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ‘ওএম  গ্লোবাল স্টার্লিন ইউনির্ভাসি’।

এটি বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের জন্য আদর্শ একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। যেখানে শতভাগ শিক্ষা বান্ধব পরিবেশের পাশাপাশি নিরাপত্তার বিষয়টিকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে থাকেন কর্তৃপক্ষ। বাংলাদেশের শিক্ষার্থীরা যাতে স্বাচ্ছন্দে শিক্ষায় মনোযোগী হতে পারেন, সে জন্য সব রকম সহায়তা দিয়ে থাকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি। রয়েছে স্কলারশীপসহ পড়াশোনার নানা সুযোগ। দু’দিনের ঢাকা সফরে এসে এমন তথ্যই জানালেন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটির চিফ এডুকেশন কনসালটেন্ট মি. সুলতান সিং। এসময় তার সঙ্গে ছিলেন সুকলা চাকি রুমি।

সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে সুলতান সিং জানান, ভারত-বাংলাদেশ পরীক্ষিত বন্ধু। রক্ষক্ষয়ী মুক্তিযুদ্ধে লাখো প্রাণের বিনিময়ে অর্জিত লালসবুজের পতাকা বাঙালির গর্বের। মুক্তিযুদ্ধে শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে সুলতান সিং বলেন, বাংলাদেশের উন্নয়ন প্রশসংসার দাবি রাখে।  যে জাতি যত শিক্ষিত, সেই দেশ তত উন্নত সার্বজনিন প্রবাদ বাক্যটি উচ্চারণ করে সুলতান সিং বলেন, শিক্ষা অর্জনে হাজারো পথ খোলা রয়েছে।

মুক্তবাজার অর্থনীতিতে একজন মানুষ পৃথিবীর যে কোন জায়গায় শিক্ষা গ্রহণ করতে পারেন।ইনজের ইচ্ছে মাফিক শিক্ষা গ্রহণ হচ্ছে একজন নাগরিকের অধিকার। এক্ষেত্রে ভারতে আমরা অংশিদার হতে চাই। আমাদের ভার্সিটিতে রয়েছে শিক্ষার সর্বোচ্চ সুযোগ-সুবিধা। শিক্ষার ক্ষেত্রে বিশ্বে মোকাবেলা করার মত  চ্যালেঞ্জ ভারত নিতে পারে। একজন শিক্ষার্থী লেখাপড়ার বাইরে অন্যকোন ভাবনার সুযোগটি নেই এখানে।

কারণ একজন শিক্ষার্থীর জন্য যা কিছু প্রয়োজন তার সব কিছুই মজুদ রয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়টিতে। তাছাড়া এখানে শিক্ষাগ্রহণে নিজে থেকেই একটি প্রতিযোগিতা সৃষ্টি হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা পরিবেশটাই এমন যে একজন শিক্ষার্থীকে যাদু মত টেনে নিয়ে যায়।  শিক্ষার পাশাপাশি সামাজিক দায়বদ্ধতা, দেশাত্মবোধ ইত্যাদি বিষয়েও সচেতন করে তোলা হয়। অর্থাৎ একজন শিক্ষার্থীকে বিশ্বমানের নাগরিক হিসেবে গড়ার তোলার সব রকমের পরিবেশ রয়েছে।  ওএম স্টার্লিন গ্লোবাল বিশ্ববিদ্যালয় মনে করে-বিশ্বমানের শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। তাই আমরা বলে থাকি ‘হাত বাড়ালেই বন্ধু, পা বাড়ালেই পথ’।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here