রায়গঞ্জের বিশেষ কিছু এলাকায় ক্যামেরাবন্দী হল অলি ও টিমের জাতীয় সঙ্গীতের ভিডিও

0
1121
দেবলীনা ব্যানার্জী, রায়গঞ্জ : ৭৩ তম স্বাধীনতা দিবসে এবার উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জ সমগ্র দেশকে উপহার দিতে চলেছে জাতীয় সঙ্গীতের একটি অনবদ্য মিউজিক ভিডিও। ‘জনগণমন-অধিনায়ক জয় হে’,  এই লাইনটিই যেকোনো ভারতবাসীর মনে আলোড়ন সৃষ্টি করার জন্য যথেষ্ট। ১৯৫০ সালে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের তৎসম বাংলা ভাষায় রচিত এই গানটির প্রথম স্তবক স্বাধীন ভারতের জাতীয় সঙ্গীত রূপে স্বীকৃতি লাভ করে ।স্বাধীনতা দিবসের প্রাক্কালে দেশমাতৃকাকে অভিবাদন জানানোর জন্য তাই জাতীয় সঙ্গীতকে বেছে নিয়েছে রায়গঞ্জের শো মাই ভিডিও (এস এম ভি) প্রোডাকশন।
এস এম ভি প্রোডাকশনের প্রথম কাজ এই মিউজিক ভিডিওটি। এদেরই প্রযোজনা ও নির্দেশনায় রায়গঞ্জের মোট ১১ জন কন্ঠ শিল্পী গলা মিলিয়েছেন এখানে। ধৃতি, সায়শ্রী, কস্তুরী, শীর্ষেন্দু, সারদা, জয়ত্রী, দেবার্পন, দেবজিত, সৈকত ও সোমকের সাথে গলা মেলাতে দেখা যাবে জনপ্রিয় শিশু কন্ঠশিল্পী অলিকে। এছাড়া বেহালায় সুর তুলেছে মধুরিমা। দুর্গাপুর রাজবাড়ি, বিন্দোল ভৈরবী মন্দির, ছটপরুয়া চার্চ, কুলিক পক্ষীনিবাস ও রায়গঞ্জ রেল স্টেশনে গানের মুহূর্তগুলি সুন্দরভাবে ক্যামেরাবন্দী করেছে সুমিত রায়। মিউজিক অ্যারেঞ্জমেন্টের দায়িত্বে ছিল রায়গঞ্জেরই এস এস মিউজিক স্টুডিও। টিমের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে,সমগ্র রায়গঞ্জ বাসীর তরফ থেকে ভারত মাতা কে স্বাধীনতা দিবসে একটা ছোট্ট উপহার দেওয়ার ভাবনা থেকেই এই সমগ্র প্রজেক্ট টি মাথায় আসে।
স্বাধীনতা দিবসের প্রাক্কালে ১৩ই আগস্ট ইউ টিউবে মুক্তি পায় এই ভিডিও,  আর তারপর মাত্র তিনঘণ্টায় কুড়ি হাজারের বেশি ভিউয়ার হয়ে যায় এটির। এস এম ভি প্রোডাকশনের পক্ষ থেকে সোমক মুখার্জি জানান, ‘আমি, সুমিত, শীর্ষেন্দু ও দেবজিত, আমরা চারজন মিলে এই এস এম ভি প্রোডাকশন খুলেছি। সকলের অক্লান্ত পরিশ্রমের ফসল এই মিউজিক ভিডিও টি।ভবিষ্যতে আরও ভালো ভালো কাজ আসছে।আমরা পরবর্তীতে মিউজিক ভিডিও, শর্ট ফিল্ম ও ওয়েব সিরিজের কাজ করব।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here